এশিয়ান আইটি ইনকর্পোরেশন- একাউন্টিং সফটওয়্যার

আপনার ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের সকল হিসাব-নিকাশে একাউন্টিং সফটওয়্যার নিয়ামক হিসেবে কাজ করবে । ব্যবসা সংক্রান্ত সকল বিষয় সফটওয়্যারে বিদ্যমান যা আপনার ব্যবসাকে সহজ ও বেগবান করতে যথেষ্ট ভুমিকা রাখবে । বর্তমানে আমাদের দেশে আই টির জোয়ার চলছে । সকল ক্ষেত্রে আই টির ব্যবহার ত্বরান্বিত হচ্ছে । মানুষ সফটওয়্যার ব্যবহার করে ব্যবসাসফল হচ্ছে পাশাপাশি সফটওয়্যার এর মাধ্যমে ব্যবসায়িক ডাটা এনালাইসিস করতে পারছে এবং ভবিষ্যতের সঠিক সিদ্ধান্ত নিতে পারছে যা, যে কোন ব্যবসার ক্ষেত্রেই অতীব জরুরী । সফটওয়্যার এর নামঃ একাউন্টিং সফটওয়্যার একাউন্টিং সফটওয়্যার এর বৈশিষ্ট্যসমূহ ও সুবিধাবলিঃ ১। একই সফটওয়্যার এর মাধ্যমে আপনি অ্যাডমিন,ম্যানেজার এর আলাদা আলাদা প্যানেল ভিন্ন ভিন্ন ইউসারনেম ও পাসওয়ার্ড আছে । ২। স্মার্টফোন এর মাধ্যমে রেস্পন্সিভ সফটওয়্যার টি ব্যাবহার করা যাবে। ৩। সফটওয়্যার এর ড্যাশবোর্ড এ আপনার পেটি ক্যাশ, প্রতিদিনের আয়-ব্যয়, বিক্রি, লোন প্রদান , লোন গ্রহণ দেখতে পারবেন । ৪। ব্যাংক-বালাঞ্চ , কাস্টমার ও সাপ্লাইয়ার এর বাকি সহ, স্টক বালাঞ্চ, সর্বমোট সেল,সর্বমোট বাকি, সর্বমোট ক্যাশ আরও অন্যান্য বিষয় ড্যাশবোর্ড এ দেখাবে । ৫। সফটওয়্যার এ কাজ বণ্টন করার সুবিধা আছে- যার যার নিজস্ব কাজ নিজ নিজ প্যানেল থেকে করতে পারবে । ৬। সকল ধরণের পণ্য যোগ, স্টক যোগ, পণ্য সংখা নিমিষেই গণনা করা যাবে । ৭। এখানে বিভিন্ন ধরণের লেজার হবে যেমন-(কাস্টমার লেজার, সাপ্লাইয়ার লেজার, ইনভেষ্টর লেজার) । ৮। সকল ধরণের দৈনিক, মাসিক, বাৎসরিক বিভিন্ন রিপোর্ট দেখা যাবেঃ যেমন - ইনকাম -স্টক-বিক্রয়-ক্রয় -পেমেন্ট -কালেকশন -ব্যয় -ইনভেষ্ট-ব্যাংক -সালার‍ি -ধার-দেনা রিপোর্ট ৯। সকল ধরণের দৈনিক, মাসিক, বাৎসরিক সহ তারিখ থেকে তারিখ বিভিন্ন ক্যাশবুক দেখা যাবে । ১০। ক্যাশ থেকে ব্যাংক- ব্যাংক থেকে ক্যাশ এমনকি মোবাইল ব্যাংক এর লেনদেন এখানে ব্যবহার করা যাবে । ১১। স্টাফ/কর্মীদের দের তথ্য সংরক্ষণ ও পর্যবেক্ষণ করা যাবে । ১২। স্টাফ/কর্মীদের দের বেতন ভাতা বোনাস সংক্রান্ত সব অপশন এখানে পাবেন । ১৩। কিস্তিতে প্রদানকৃত পণ্য ও বাকিতে কাষ্টমার দের সকল তথ্য সংরক্ষণ ও পর্যবেক্ষণ করা যাবে । ১৪। কিস্তি জমাদান তারিখ ও সময় এর নোটিফিকেশন পাবেন । ১৫। সকল প্রকার লেনদেনের তথ্য নির্ভুলভাবে সংরক্ষণ ও পর্যবেক্ষণ করা যাবে । ১৬। কাগজ পত্র হারিয়ে গেলেও কোন অসুবিধা হবে না । ১৭ । সফটওয়্যার এ দৈনিক, মাসিক ডেটা ব্যাকআপ সিস্টেম রয়েছে, ডেটা হারানোর কোন সম্ভাবনাই নেই । ১৮। দেশ বিদেশের যে কোন প্রান্ত হতে ল্যাপটপ অথবা স্মার্ট মোবাইল এর মাধ্যমে আপনার ব্যবসার সকল কাজ সম্পাদনা করতে পারবেন । ১৯। স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতার সঠিক বিকাশ এই সিস্টেম এ রয়েছে । ২০। সহজভাবে ও আধুনিকতার সাথে আপনার ব্যবসা কার্য সফল্ভাবে করতে পারবেন । ২১। সফটওয়্যার এ অটো বারকোড তৈরি ও প্রিন্ট করা যাবে । ২২। রিপোর্ট, ক্যাশবুক, লেজার সরাসরি প্রিন্ট করতে পারবেন সফটওয়্যার থেকে । ২৩। সফটওয়্যার এ তথ্যবলি নিরাপদ ভাবে সুরক্ষিত থাকবে, যে কোন সময় তা ব্যবহার করা যাবে । ২৪। বিভিন্ন ব্রাঞ্চ এর আলাদা আলাদা ম্যানেজার প্যানেল হিসেবে সফটওয়্যারটি ব্যবহার করা যাবে । ২৫। সফটওয়্যার এ যে কোন পণ্য ও যে কোন কাস্টমার এর তথ্য খুব সহজেই খুঁজে পাওয়া যাবে । ২৬। কাস্টমারকে বাকিবাবদ কোন সতর্কতামূলক মেসেজ পাঠাতে চাইলে সেটাও সম্ভব এখানে ।

0 Comments

Leave a Comment